Skip to content

লন্ডনে তুর্কি দুতাবাসের সামনে ২১ সংগঠনের প্রতিবাদ কর্মসূচী ও স্মারকলিপি প্রদান

ব্লগারের প্রোফাইল ছবি


বাংলাদেশে চলমান আন্তর্জাতিক অপরাধের বিচার কার্যক্রমের সহায়ক শক্তি হিসেবে ছাত্র শিক্ষক পেশাজীবী এবং বিশেষজ্ঞদের নিয়ে ১৩ সংগঠনের আন্তর্জাতিক জোট "ইন্টারন্যাশনাল ক্রাইমস স্ট্র্যাটেজি ফোরাম" (আইসিএসএফ) এর আহ্বানে আজ ১৬ জানুয়ারী ২০১৩ লন্ডনে তুর্কী দূতাবাসের সামনে মুক্তিযুদ্ধ এবং বিচারের পক্ষের ২১ সংগঠনের এক সম্মিলিত প্রতিবাদ কর্মসূচী পালিত হয়।

বিচারাধীন আসামী গোলাম আযমের মামলার রায় বিষয়ে হস্তক্ষেপমূলক তুর্কী রাষ্ট্র প্রধানের সাম্প্রতিক চিঠি এবং এর পরবর্তিতে ট্রাইবুনালের কার্যক্রম পরিদর্শনকারী এক তুর্কী প্রতিনিধিদলের অসদাচরণের প্রতিবাদেই এই কর্মসূচী, যা তুর্কী দুতাবাসে স্মারকলিপি প্রদানের মধ্য দিয়ে সম্পন্ন হয়। হিমাংকের তিন ডিগ্রী নিচে তাপমাত্রায় প্রতিকূল আবহাওয়াকে উপেক্ষা করে উক্ত প্রতিবাদ কর্মসূচীতে মুক্তিযুদ্ধ এবং চলমান বিচারের পক্ষের বিভিন্ন সংগঠন এবং ব্যক্তি সংহতি জানিয়ে সামিল হন। বর্ণাঢ্য ব্যানার ফেস্টুন প্ল্যাকার্ডে এবং উপস্থিত জনতার শ্লোগানে প্রকম্পিত হয় লন্ডনের বেলগ্রেভ চত্বরের দুতাবাস এলাকা। উপস্থিত এবং সংহতি জানানো সংগঠনগুলোর মধ্যে যুক্তরাজ্য আওয়ামী লীগ, জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল (জাসদ), আওয়ামী আইনজীবি পরিষদ, প্রজন্ম'৭১, যুদ্ধাপরাধ বিচার মঞ্চ, প্রবাসী পেশাজীবি পরিষদ, ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটি, এবং চারণ সাংস্কৃতিক কেন্দ্র উল্লেখযোগ্য।

১৯৭১ সালে মুক্তিযুদ্ধের সময় গণহত্যায় লিপ্ত পাকিস্তান সেনাবাহিনী ও তাদের এদেশীয় দোসর রাজাকার আল-বদর এবং আল-শামসদের পক্ষ অবলম্বনকারী রাষ্ট্র তুরস্ক যার নিজেরই বিরুদ্ধে রয়েছে আর্মেনীয় এবং কুর্দিদের বিরুদ্ধে গণহত্যার অভিযোগ। আন্তর্জাতিক আইনের আওতায় রাষ্ট্র হিসেবে তুরস্কের নিজেরই রয়েছে এই সব অপরাধ বিচারের দায়িত্ব, যেই একই দায়বদ্ধতা থেকে রাষ্ট্র হিসেবে বাংলাদেশ বর্তমানে ১৯৭১ এ সংঘটিত আন্তর্জাতিক অপরাধসমূহের বিচার করছে। এই বিচার প্রক্রিয়ার অধীনে অভিযুক্তদের কয়েকজন ঘটনাচক্রে জামায়াতে ইসলামীর সাথে সংশ্লিষ্ট হলেও বিচার হচ্ছে ব্যক্তি হিসেবে তাদের কৃত অপরাধেরই, এখানে অভিযুক্তদের রাজনৈতিক পরিচয় একেবারেই অপ্রাসঙ্গিক। তাই কেবলমাত্র জামায়াতে ইসলামীর সাথে তুরস্ক সরকারের এবং সেখানকার প্রভাবশালী রাজনৈতিক শক্তি মুসলিম ব্রাদারহুডের সাংগঠনিক যোগাযোগকে ভিত্তি করে তুরস্ক সরকারের পক্ষ থেকে বাংলাদেশের বিচার প্রক্রিয়ায় হস্তক্ষেপের এই প্রচেষ্টা কেবল রাজনৈতিক উদ্দেশ্য প্রণোদিতই নয়, এটি কূটনৈতিক শিষ্ঠাচার এবং আন্তর্জাতিক আইন লঙ্ঘনেরও নামান্তর। কারণ এর মাধ্যমে সার্বভৌম রাষ্ট্র বাংলাদেেশর স্বাধীনভাবে চলমান একটি বিচার প্রক্রিয়ায় রাজনৈতিকভাবে হস্তক্ষেপের চেষ্টা করা হয়েছে, যা একইসাথে ১৯৭১ এর সকল শহীদ, নির্যাতিত, এবং বাংলাদেশের আপামর জনসাধারণের সুবিচােরর দাবীর প্রতি অবজ্ঞাজনকও বটে।

এই সব অপতৎপরতার নিন্দা জানিয়ে, এর সুষ্ঠু তদন্ত এবং তুরষ্ক সরকারের দিক থেকে নিঃশর্ত ক্ষমা চাওয়ার দাবী জানিয়ে আইসিএসএফ এর পক্ষে সৈকত আচার্য বলেন, 'এটি বাংলাদেশের নাগরিক হিসেবে আমাদের সবার জন্য আত্ম-মর্যাদার প্রশ্ন, এবং এই লড়াই আমাদের সবার'। প্রায় শতাধিক মানুষের সম্মিলনে অনুষ্ঠিত এই প্রতিবাদ কর্মসূচীতে উপস্থিতদের মধ্যে আরও ছিলেন যুক্তরাজ্য আওয়ামী লীগের সভাপতি সুলতান শরীফ, ব্যারিস্টার নোরা শরীফ, একাত্তরের ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটির নেতৃবৃন্দ সৈয়দ আনাস পাশা এবং আনসার আহমেদ উল্লাহ, যুক্তরাজ্য জাসদ এর সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আবুল মনসুর, যুদ্ধাপরাধ বিচার মঞ্চের যুক্তরাজ্য শাখার ভারপ্রাপ্ত আহ্বায়ক এডভোকেট আনিসুর রহমান, আওয়ামী আইনজীবী পরিষদ এর সিনিয়র সহ-সভাপতি ব্যারিস্টার সওগাতুল খান এবং সাধারণ সম্পাদক অনুকুল তালুকদার (ডাল্টন), এবং প্রজন্ম ৭১ নেতা মুরাদ রনি প্রমূখ। প্রিন্ট এবং ইলেকট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকবৃন্দের মধ্যে আরও উপস্থিত ছিলেন বিবিসি, এটিএন বাংলা, বাংলা টিভি, চ্যানেল এস, চ্যানেল নাইন, এবং চ্যানেল আইয়ের প্রতিনিধিবৃন্দ।

উল্লেখ্য, ইতোমধ্যেই তুর্কি রাষ্ট্র প্রধানের এই শিষ্ঠাচার বহির্ভুত হস্তক্ষেপের নিন্দা জানিয়ে বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে গণতান্ত্রিক, সেক্যুলার এবং ইসলামী চিন্তাবিদদের বিভিন্ন সংগঠনের পক্ষ থেকেও বিবৃতি প্রদান করা হয়েছে। বিবৃতি প্রদানকারী ইসলামী চিন্তাবিদদের সংগঠনগুলোর মধ্যে উল্লেখযোগ্য হল - ওয়ার্লড মুসলিম কংগ্রেস, ইনস্টিটিউট অব ইসলামিক স্টাডিজ, ইসলামিক রিফর্ম এবং দ্বীন রিসার্চ ইনস্টিটিউট।

আহ্বানকারী আইসিএসএফ এর জোটভুক্ত উল্লেখিত ১৩-সংগঠন হল বাংলাদেশ সেন্টার ফর জেনোসাইড স্টাডিজ, সচলায়তন, আমারব্লগ, মুক্তাঙ্গন ব্লগ, ক্যাডেট কলেজ ব্লগ, ই-বাংলাদেশ, নাগরিক ব্লগ, জেনোসাইড বাংলাদেশ আর্কাইভ, মুক্তমনা ব্লগ, আমরাবন্ধু ব্লগ, লন্ডন লইয়ার্স ফোরাম, নিউজ বাংলা, এবং রেডিও হৈচৈ। ১৯৭১ এর সকল শহীদ এবং নির্যাতিতদের বিচারের দাবীর পক্ষে ২০০৯ সাল থেকে সক্রিয় এই জোট বাংলাদেশে অনুষ্ঠিত আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইবুনালে চলমান বিচার প্রক্রিয়াকে নিবিড়ভাবে পর্যবেক্ষণ, কারিগরি সাহায্য প্রদানসহ দেশে এবং বিদেশে একে সঠিকভাবে তুলে ধরার কাজে নিয়োজিত।
-
ফটো এলবাম-ফেইসবুক।


ব্লগারের প্রোফাইল ছবি

লন্ডনে লক্ষ লক্ষ ছাগুর ভীড়ে মাত্র এইকজন প্রো ৭১ Shock


স্যালুট উপস্থিত প্রতিবাদকারীদের

___________
জয় বাংলা,জয় বঙ্গবন্ধু


ব্লগারের প্রোফাইল ছবি

গুড জব। গ্রেটফুল টু ইউ ।।।।।

~-^
উদ্ভ্রান্ত বসে থাকি হাজারদুয়ারে!


ব্লগারের প্রোফাইল ছবি

স্যালুট

------------------
ন্যায় এবং অন্যায়, দুইটার মধ্যে মাঝামাঝি কোন অবস্থান বলে কিছু নাই। মাঝামাঝি থাকা মানেই অন্যায়কে সাপোর্ট করা। নদীর দুইপারের যেকোন একপারেই আপনাকে থাকতে হবে, মাঝামাঝি থাকতে চাইলে হয় ডুবে যাবেন, অথবা ভাসতে ভাসতে যেকোন একপারেই আবার ভিড়বেন।


ব্লগারের প্রোফাইল ছবি

স্যালুট!!!

.........................................
ধর্মান্ধ এবং রাজাকার মুক্ত দেশ চাই
.....................................


ব্লগারের প্রোফাইল ছবি

গুড জব, স্যালুট।
===========

আমি আমার ভেতরে প্রতিনিয়ত বংশবৃদ্ধি করছি
যেমনটি করে থাকে অকোষী জীব হাইড্রা ।
বিলুপ্ততা ঠেকানোর কিংবা টিকে থাকার লক্ষ্যে নয়
নশ্বরতা আবিস্কারের লক্ষ্যে।


ব্লগারের প্রোফাইল ছবি

স্যালুট!!
কীপ ইট আপ।
smile :) :-)

_____________________

ক্ষুদ্র স্বার্থ ভুলে মুক্তির দাঁড় টান।


ব্লগারের প্রোফাইল ছবি

স্যালুট।

....................................................................................


আমরা ছুডলোক, গালিবাজ। জামাত শিবির ছাগুর বিরুদ্ধে গালাগালি করেই যাব, প্রতিরোধ করেই যাব। সুশীলতার মায়েরে বাপ। আমরা ছাগু ও সুশীলদের উত্তমরূপে গদাম দিয়ে থাকি


ব্লগারের প্রোফাইল ছবি

গুড জব, স্যালুট।

=========================================================
স্মৃতি ঝলমল সুনীল মাঠের কাছে আমার অনেক ঋণ আছে......


ব্লগারের প্রোফাইল ছবি

পড়লাম। কিন্তু একই কথা বারবার ঘুরে ঘুরে আসে। সরকার যুদ্ধ-পরাধীদের নিয়ে নাটক শুরু করেছে আর কতদিন বিচারের রায়ের অপেক্ষায় থাকব। যেখানে সারা দেশের , এমন কি গোলাম আযম, সাঈদি, নিজামি নিজেরা ও জানে যে তারা অপরাধী তাহলে এত দেরি কেন ? নাকি সরকার বৃহৎ কোন শক্তি ওদের বাচিয়ে দেবার অপেক্ষায় আছে ?
ওদের সারা দেশের মানুষের সামনে কোরবানীর গোশত র মতন টুকরো টুকরো করে কাটা হোক।

# Satyajit Das #
# Powered by MacOSX Lion #


ব্লগারের প্রোফাইল ছবি

প্রাউড টু বি আ পার্ট অব ইট।

প্রতিবাদ প্রতিরোধ চলবেই

.....................................
মায়ের লাঞ্ছিত বুকে শকুন নখের দাগ... কে পেরেছে ভুলে যেতে কবে? ধর্ষিতা বোনটির বিভীষিকা মাখা চোখ আমায় জাগিয়ে রাখে, ডেকে বলে,
মনে রেখো এদিনের শোধ নিতে হবে!! , যদি বল ঘৃনাবাদী, দ্বিধাহীন মেনে নেব তাও


ব্লগারের প্রোফাইল ছবি

একুশ সংগঠন মিলাইয়া একুশজন লোক জোগাড় হয় নাই, আর ছাগুদের মিছিলে লাখ লাখ ছাগু সাঈদির পোস্টার লইয়া পিকাডিলিতে মাতম করে। এতই কি করুণ অবস্থা অনলাইন একটিভিস্টদের??

------------------------------------------------------------------------------------
হিজ নেম ইজ - পোলা, দেশী পোলা ;
ম্যান উইথ এ ডাবল-ও লাইসেন্স ; টানে সবাইকে, বাঁধনে জড়ায় না


ব্লগারের প্রোফাইল ছবি

ফুল ক্যাপচার করা যায় নাই আই-ফোনে। ৫০প্লাস লোক ছিলো। সবার একসাথে ছবি দেখলে বুঝতে পারবেন। ছবি দিতেছি সুন। আর কিছু কিছু ক্ষেত্রে কোয়ান্টিটি এর চেয়ে কোয়ালিটি ম্যাটার করে।

-
একবার রাজাকার মানে চিরকাল রাজাকার; কিন্তু একবার মুক্তিযোদ্ধা মানে চিরকাল মুক্তিযোদ্ধা নয়। -হুমায়ুন আজাদ


ব্লগারের প্রোফাইল ছবি

কয় শ'য়ে এক লাখ হয় জানেন নাকি? আবার কয় লাখ লাখ!!! দেহি, লাখ লাখ ছাগুর ছবি দেনতো। ছাগুগুলানরে এখন গোয়াজম, সাঈদীর লাইগা মাতমই করতে হইবো।

**********************************************
ধর্ম যবে শঙ্খ রবে করিবে আহবান, নিরব হয়ে নম্র হয়ে পণ করিও প্রাণ


ব্লগারের প্রোফাইল ছবি

স্যালুট অ্যান্ড শেয়ার্ড

-----------------------------------------------------

শুধুমাত্র পশুদের পক্ষেই আত্মতৃপ্ত জীবনযাপন সম্ভব। মানুষের কাজ লড়াই করে বাঁচা.....................


ব্লগারের প্রোফাইল ছবি

তুর্কীর প্রতি ঘৃনা জানাই - ওয়াক থু।

______________________________________
'বিপ্লব স্পন্দিত বুকে মনে হয় আমিই মুজিব'


ব্লগারের প্রোফাইল ছবি

স্যালুট!

----------------------------------------------------------------------------------------------------------------------
ন্যায় আর অন্যায়ের মাঝখানে নিরপেক্ষ অবস্থান মানে অন্যায়কে সমর্থন করা।


ব্লগারের প্রোফাইল ছবি

স্যালুট!!! শেয়ার্ড!!

.
.
.
.
.
&&&&&&&& ছাগুগোত্রকে যারা আশ্রয়-প্রশ্রয় দেয় তারাই ছাগুর সমগোত্রীয়&&&&&&


ব্লগারের প্রোফাইল ছবি

স্যালুট সবাইকে।

____

দ্রৌপদীকে যখন চুলের মুঠি পাকাইয়া জুয়ার আসরে টানিয়া আনা হইতেছিল তখনো আমি ভদ্রপল্লী হইতে উহা উপভোগ করিতেছিলাম, যদিও দ্রৌপদী স্মরণ করিবামাত্রই আমি দুর্যোধনকে না আটকাইয়া দ্রৌপদীকে শাড়ি কিভাবে পরিতে হয় তাহা শিখাই। অতঃপর তোমরা আমার লীলা কি করিয়া বুঝিবে?

glqxz9283 sfy39587p07