কবিতা | amarblog.com: Bangla Blog ( আমারব্লগ ) with no Moderation.

Skip to content

কবিতা

ব্লগারের প্রোফাইল ছবি

রুদ্র মুহম্মদ শহিদুল্লাহঃ কেমন আছো আকাশের ঠিকানায়?


উৎসর্গঃ তসলিমা নাসরিন (কূলহারা কলঙ্কিনী)


“রুদ্র মুহম্মদ শহিদুল্লাহ” বাংলা সাহিত্যাকাশের এক উজ্জ্বল নক্ষত্রের নাম। যার জন্ম ১৯৫৬ সালের ১৬ই অক্টোবর। তাঁর বাবা ছিলেন পেশায় একজন ডাক্তার রুদ্রের জন্মের সময় তার কর্মস্থল ছিল বরিশাল। কবির জন্ম বরিশাল হলেও তাদের মূল বাড়ি বাগেরহাট জেলার মংলা উপজেলার মিঠেখালি গ্রামে। দ্রোহ ও প্রেমের কবির শৈশব কালটি কাটে মংলাতেই। এর পর চলে আসেন ঢাকায়। ১৯৭৩ সালে ঢাকা ওয়েস্ট হাইস্কুল থেকে তিনি এস.এস.সি এবং ১৯৭৫ সালে এইচ.এস.সি পাস করেন। এর পর তিনি ভর্তি হন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে এবং এখান থেকে বাংলায় স্নাতক ও স্নাতকোত্তর ডিগ্রি লাভ করেন।

ব্লগারের প্রোফাইল ছবি

জ্বররুপে দীর্ঘস্থায়ী প্রেমিকা

সে কবি, যাকে প্রেমিকা বলে দাবি করি
ফেসবুকে সার্চ করে দেখার পরে
ঐ নিখুঁত ঠোঁট মুঠোফোন স্ক্রিনে ডুবে থাকা
তাজা মাছের মত লাফ দিয়ে স্বঠোঁটে ডুব মারে
আর চোখ থেকে কলিজার ক্ষতে মলম লাগাই
বিচ্ছুরিত গুচ্

ব্লগারের প্রোফাইল ছবি

যাহা দুঃখ, তাহা কষ্ট, আহা বৃষ্টি

কতবার ভাবি যাবো না
সত্যি আর যাবো না
তোর কাছে
আমারও তো কষ্ট আছে
নিঃসঙ্গ বেদনায় একাকি
বৃষ্টির এ কটা দিন
তার সঙ্গে মিশে থাকি

কতবার ভাবি মনে করবো না
আর তোকে
এবার বন্ধু মিশে যাবো ঠিকই
তোর শোকে

ব্লগারের প্রোফাইল ছবি

অপেক্ষা

জানালার গরাদের তলায় রাখা আছে হাত
লোহার রডে কয়েক ফোটা জল
বৃষ্টি হয়েছে কি হাসনাবাদ লাইনে?
বা কেউকি বাদাম খেয়ে কুলকুচি করে ছুড়েছে?
ভাবতে চাইছি না-কারণ রোদ নেই, ভীড় নেই
ট্রেনে দাঁড়াতে হয়নি আ

ব্লগারের প্রোফাইল ছবি

উৎসহীন

তখন তোকেই দেখতাম আমি, ঠিকানা ছাড়া, পরিচয়হীন!
জানতাম না-
প্রযত্নে বাবার নাম ঝুলিয়ে কিভাবে পেতে হয়!
বড় হইনি যে!

ব্লগারের প্রোফাইল ছবি

সমর্পণ

ছাদের কার্নিশে দাঁড়িয়ে আছি, নিচে যাবার মত
-একটা সমর্পণ চাই!
নিজেকে কতটা সেই খুঁতখুঁতে ঠাকুমা মত,
সেই তিলক-কাটা বৈষ্ণবের মত-
হাত দিয়ে ঠেলে সরিয়ে দেব ডিমের বাটি আর ছোঁয়াচ বাচিয়ে,
সঞ্চয় করেছ

ব্লগারের প্রোফাইল ছবি

করো মাফি মা’বুদ


রহমতের পর এবার এলো মাগফিরাতে বাণী,
খুব কায়মনো কামনা, করো মোদের মাফি, যদিও মোরা গুনাহগার জানি।
দেখতে দেখতে তা-ও হয়ে এলো শেষ,
এবার আসছে দোযখের আযাব থেকে নাজাতের রেশ।

ব্লগারের প্রোফাইল ছবি

পাখি আকাশ দেখে

পূবের জানালা পথে উড়ে উড়ে পাখি আকাশ দেখে
করিডোরের ভূবনময় আকাশ দেখে সোনালী ডানার পাখি
আকাশ দেখে ।

আমি পাখি হবো
উড়ে উড়ে আজীবন দেখবো তার সোনালী ডানা নীলিমার কাছাকাছি
প্রার্থিত লগ্নে ভেসে যাবো

ব্লগারের প্রোফাইল ছবি

ভালোবাসা, বুক পকেটেই রাখি !

একজন অনামিকা-
তাহারে মনে চায়,
পরনে নীল পাড় শাড়ি।

নীলাম্বরীর দেখা মেলা ভার;
তবুও খুঁজে ফেরা, নিরন্তর ।

হটাৎ একদিন দেখা-
কিসের কষ্ট, তোমার ?

কই, কষ্ট না তো;
ইচ্ছে পূরনে বাধা আছে যতো...

ব্লগারের প্রোফাইল ছবি

কানের দুল

একজন নীলাম্বরী
মনে তাহার চায়,
পড়িতে নীল পাড়ি শাড়ি।।

কিন্তু ইচ্ছে পূরন,
সে তো, ভাগ্যের কথা।
নীলাম্বরীর ইচ্ছে গুলোতে তাই
মিশে আছে, অবাস্তব সরলতা।

একদিন জিজ্ঞাস করলাম
কিসের কষ্ট, তোমা

Syndicate content
glqxz9283 sfy39587p07